blogsboard

#exam-hacks #time #study-techniques

13 Feb, 2022

শেষ সময়ে পড়াশুনা এবং টাইম ম্যানেজমেন্ট

i) দিন ভাগ করে প্রতিটা সাবজেক্ট রিভিশন দেওয়াঃ 

ধরো তোমার পরীক্ষার আর আছে ১৫ দিন। এই ১৫ দিন তুমি দিন ভাগ করে পড়া শুরু করো। এখন দিন কীভাবে ভাগ করবে। একেবারেই নিজের উপর। তবে মূল আইডিয়াটা হচ্ছে যেগুলোতে তুমি বেশি দুর্বল এবং যেগুলোর আগে গ্যাপ সবচেয়ে কম সেগুলো আগে রিভিশন দেওয়া। 

ii) মূল বইয়ের দিকে জোর দেওয়াঃ

সবার আগে মূল বই পড়তে হবে এখন। অন্য কোন বই/গাইড থেকে এখন যতদূরে থাকা যায় তত ভাল। কারণ, শিক্ষকেরা মুল বই থেকেই প্রশ্ন করেন, অন্য কিছু দেখে না।  

iii) নতুন নতুন টপিক পড়ার ব্যাপারটা থেকে যতদূরে থাকা যায় তত ভালঃ 

নতুন কোন টপিক নিয়ে এখন পড়াশুনা না করাই ভাল। বরং আগের পড়াগুলোই বেশি করে দেখা উচিত। শুধুমাত্র যে সকল টপিক ৪-৫ স্টার (মানে কম হলেও গত কয়েকবছরে ৩-৪ বার বোর্ডে এসেছে), সেগুলো অবশ্যই পড়ে যাবে, যদি আগে পড়া না হয়ে থাকে। 

iv) বোর্ড প্রশ্নে প্রায়োরিটি দেয়াঃ 

শেষ ৫-৭ বছরের সকল বোর্ড প্রশ্ন সমাধান করে যাওয়া এবং শুধুমাত্র কোন টপিকে খুব বেশি ভাল দখল থাকলে টেস্ট পেপার সলভ করা।

v) নিত্য প্রয়োজনীয় কাজের সময় ভাগঃ 

নিয়ম করে ঘুম, খাওয়া, গোসল, এর জন্য ১০ ঘন্টা সময় রাখা

vi) নিজেকে সময় দাওঃ

প্রতিদিন ৩০ মিনিট-১ ঘন্টা রাখা উচিত নিজেকে নিয়ে চিন্তা করার জন্য। এটা চাপমুক্ত থাকার খুব ভাল কৌশল।

vii) টপিক ওয়াইজ প্রায়োরিটি সেট করাঃ

প্রতিদিন পড়াশুনার টার্গেট সেট করতে হবে, আর সেটা সাবজেক্ট ভিত্তিক না হয়ে টপিক ভিত্তিক হওয়া উচিত- একটা টপিক এবং তা কতটুকু গুরুত্বপূর্ণ তার ভিত্তিতে টার্গেট সেট করে ওই টপিক টা শেষ করতে হবে।     

viii) স্মার্টফোন বা ইলেক্ট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার করা আস্তে আস্তে কমিয়ে দাওঃ

দিনে ১ ঘন্টা করে প্রতিদিন স্মার্টফোন ব্যবহারের অভ্যাস কমাও। ধরো, তুমি দিনে ৫ ঘন্টা ফোন ব্যবহার করো। শুরুতেই একদম বাদ দিতে পারবে না। প্রথমে ১ ঘন্টা কমাও, তারপর আরো ১ ঘন্টা করে আস্তে  আস্তে কমাতে থাকো। এভাবে ধীরে ধীরে ১ সপ্তাহ দেখো, দেখবে তাহলে আস্তে আস্তে ঠিক হবে। এই পদ্ধতি অনুসরণ করে কাজে লাগছে কিনা সেটা আমাদের জানাও।

ix) বাজে অভ্যাস ধীরে ধীরে ত্যাগ করাঃ  

পড়ায় মন বসাতে, অতিরিক্ত ফোন/গেম/আড্ডার নেশা কমাতে পুরষ্কার পদ্ধতি অনুসরণ করো- এটা খুব ইন্টারেস্টিং একটা ব্যাপার।  Pomodoro Technique বলে এটাকে। এই টেকনিক টা হলো তুমি একটানা ২০ মিনিট পর ১০ মিনিট বিশ্রাম নাও। তাহলে যেকোন পড়া মনে থাকার সম্ভাবনা বেশি।   

x) মানসিক চাপ কমিয়ে আনোঃ

পরীক্ষা যত কাছে আসবে ভারি পড়ার পরিমাণ কমিয়ে আনা এবং নিজের মানসিক বিশ্রামের জন্য সময় বাড়ানো।

xi) বি ফোকাসডঃ

কখনোই এক সাব্জেক্ট পড়ার মাঝে অন্য কোন সাব্জেক্ট এর চিন্তা মাথায় আনা যাবেনা। এক্ষেত্রে মেন্টাল চাপ চলে আসে এবং যে সাব্জেক্ট যে সময় এর মধ্যে শেষ করার কথা ছিল সে ফোকাস টা থাকবে না।

xii) নিজের মেমরি যাচাই করোঃ 

রুটিন করে ৪-৫ টা টপিক পড়ার পর তা সব মনে আছে কিনা পরীক্ষা করার জন্য আলাদা একদিন সব গুলোর উপর নিজের একটা পরীক্ষা নাও। কতটুকু মনে রাখতে পারছো সে থেকে যাচাই হবে।

Get Free Live Classes and Tests on the Sohopathi App